• শুক্রবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬  |   ১৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

অভ্যন্তরীণ কোন্দলের জেরে ধামরাইয়ে আ. লীগের সম্মেলন স্থগিত

  ধামরাই প্রতিনিধি, ঢাকা

০৪ ডিসেম্বর ২০১৯, ১৭:৩৬
ঢাকা
বাম থেকে সাবেক এমপি এমএ মালেক ও বর্তমান এমপি বেনজির আহমদ (ছবি : দৈনিক অধিকার)

ঢাকার ধামরাইয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক এমপিকে বাইরে রেখে সম্মেলন করার প্রস্তুতি নিলেও তা স্থগিত করে দিয়েছে কেন্দ্রীয় কমিটি। এর আগে উপজেলার বিভিন্ন ওয়ার্ড ও ইউনিয়ন সম্মেলনে একপেশে কমিটি করার অভিযোগ ওঠে স্থানীয় এমপি ও ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বেনজির আহমেদের বিরুদ্ধে।

মঙ্গলবার (৩ ডিসেম্বর) রাতে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডাক্তার দীপু মনি ধামরাই উপজেলা কমিটির সম্মেলন স্থগিত করার নির্দেশ দেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ধামরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন সাকু বলেন, কেন্দ্র থেকে সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডাক্তার দীপু মনি ধামরাইয়ের সাংসদ ও ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব বেনজির আহমেদকে ফোনে এ নির্দেশনা জানান।

বুধবার (৪ ডিসেম্বর) সকালে পূর্ব নির্ধারিত ইউনিয়নের সম্মেলনে উপস্থিত হন স্থানীয় এমপি বেনজির আহমদ ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন সাকু। এ সময় সম্মেলন স্থগিতের কথা জানিয়ে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সিরাজ উদ্দিনের সঞ্চালনায় এক সভায় বক্তৃতা রাখেন নেতারা।

এমপি বেনজির আহমেদ বলেন, সাবেক এমপি এম এ মালেক আমার সময়ে সকল অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেছেন। অথচ তিনি কেন্দ্রীয় নেতাদের কাছে অভিযোগ করে সম্মেলন স্থগিত করার অনুরোধ করেন। তিনি অভিযোগ করেন তাকে (মালেক) ছাড়া সকল সম্মেলন করা হয়েছে। তিনি কেন্দ্রীয় নেতাকর্মীদের বলেছেন আমাকে ছাড়া যদি কোনো সম্মেলন করা হয় তবে সেখানে মারামারি, হট্টগোল হবে।

তিনি আরও বলেন, গত ৫ বছরে তিনি যে অরাজকতা করেছেন সে জন্য তিনি ধামরাই আসতে পারেন না। তার ন্যাক্কারজনক কাজের জন্য ধামরাইয়ের সকল নেতাকর্মী, সাধারণ মানুষ সাবেক এমপি মালেককে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করেছে। উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক এমপি মালেক ও সাধারণ সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন সাকুর চিঠির ভিত্তিতে ওয়ার্ড পর্যায়ে, ইউনিয়ন পরিষদের সম্মেলন হয়েছে। তিনি সেখানে উপস্থিত ছিলেন না, আমি থেকেছি। এখন সে কেন্দ্রীয় নেতাদের ভুল বুঝিয়েছেন যে তাকে ছাড়াই সম্মেলন করা হচ্ছে।

এ সময় সুতিপারা ইউনিয়নের স্থগিত হওয়া সম্মেলনে উপস্থিত নেতাকর্মীদের সাথে মতবিনিময় করে তাদের সান্ত্বনা দেন এবং আওয়ামী লীগের সাথে সবসময় থাকার নির্দেশ দেন ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এমপি বেনজির আহমদ।

এ দিকে কেন্দ্রীয় নেতাদেরকে এমএ মালেক ভুল বুঝিয়েছেন বলে দাবি করেছেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন সাকু।

আরও পড়ুন : ধামরাইয়ে বিরোধ রেখেই দল গোছাচ্ছে আওয়ামী লীগ

তিনি বলেন, ধামরাইয়ের সব ইউনিয়ন পরিষদের ওয়ার্ড পর্যায়ে সম্মেলন শেষ, ইউনিয়ন পরিষদের সম্মেলন শেষ পর্যায়ে তখন সাবেক এমপি এম এ মালেক কেন্দ্রীয় নেতাকর্মীদের ভুল বুঝিয়েছেন। তাই কেন্দ্রীয় নেতাদের নির্দেশে সম্মেলন স্থগিত করা হয়েছে।

অন্যদিকে ধামরাই উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি এমএ মালেক বলেন, ধামরাইয়ে আমি উপজেলা সভাপতি থাকা স্বত্ত্বেও আমাকে বাদ রেখে অসাংগঠনিক উপায়ে কমিটি করা হয়েছে। আমি তার প্রতিবাদ করেছি। এ বিষয়ে কেন্দ্রীয় কমিটিকে জানিয়েছি। বিষয়টি জানার পর কেন্দ্রীয় কমিটি যথাযথ ব্যবস্থা নিয়েছে।

ওডি/এমবি

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন সজীব 

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড