• মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৯, ২৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬  |   ২৭ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

সোনারগাঁয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষে ঝরল তাজা এক প্রাণ

  সোনারগাঁ প্রতিনিধি, নারায়ণগঞ্জ

০২ ডিসেম্বর ২০১৯, ১৫:৪৪
নিহত
দুই পক্ষের সংঘর্ষে নিহত জাকির হোসেন (ছবি : দৈনিক অধিকার)

এলাকায় আধিপত্য বিস্তার ও মেঘনা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের টাকা ভাগাভাগিকে কেন্দ্র করে দুই পক্ষের সংঘর্ষে নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁ উপজেলায় জাকির হোসেন (৩২) নামে একজন নিহত হয়েছেন। একই সংঘর্ষে আরও তিনজন আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। পাশাপাশি হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ইতোমধ্যেই আবু হানিফ নামে একজনকে আটক করেছে পুলিশ।

নিহত জাকির হোসেন উপজেলার আমিরাদ গ্রামের মৃত আরজ আলীর ছেলে।

সংঘর্ষের ঘটনায় নিহতের বড় ভাই মনির হোসেন বাদী হয়ে সোমবার (২ ডিসেম্বর) দুপুরে স্থানীয় বৈদ্যেরবাজার ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতিকে প্রধান আসামিকে করে সোনারগাঁ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

এর আগে রবিবার (১ ডিসেম্বর) রাতে সোনারগাঁ উপজেলার আনন্দবাজার এলাকায় দুই পক্ষের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

নিহতের স্বজন, পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার আনন্দবাজার এলাকায় মেঘনা নদী থেকে দীর্ঘদিন ধরে বৈদ্যেরবাজার ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি নবী হোসেন ও নুর মিয়ার ছেলে আমির হোসেনের নেতৃত্বে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করা হচ্ছিল। অন্যদিকে, স্থানীয় একটি কোম্পানির ব্যবসা নিয়ন্ত্রণ নিয়েও তাদের দ্বন্দ্ব চলে আসছিল। এক পর্যায়ে রবিবার রাতে অবৈধ বালু উত্তোলনের টাকা ভাগাভাগি নিয়ে নবী হোসেন ও আমির হোসেনের সমর্থকদের মধ্যে গোলাগুলি ও দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষ শুরু হয়। এ সংঘর্ষে জাকির হোসেনসহ টেকপাড়া আমিরাবাদ এলাকার নুর মিয়ার ছেলে আল-আমিন, ইয়ানুসের ছেলে আবু হানিফ ও আইয়ুব আলী মেম্বারের ছেলে সিরাজ আহত হয়। 

পরবর্তীকালে গুরুতর আহত হওয়ায় জাকির হোসেনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়া হয়। এ সময় ঢামেকের কর্তব্যরত চিকিৎসক পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর জাকির হোসেনকে মৃত ঘোষণা করেন। এছাড়া অপর আহতদের সোনারগাঁ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

এ দিকে, দুই পক্ষের সংঘর্ষে জাকির হোসেন নিহত হওয়ার খবর এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে রবিবার রাতেই আমির হোসেনের সমর্থকেরা বৈদ্যেরবাজার ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি নবী হোসেনসহ তার সহযোগীদের বাড়িঘরে হামলাসহ ভাঙচুর চালায়। পরবর্তীকালে সোমবার দুপুরে নিহত জাকির হোসেনের বড় ভাই মনির হোসেন বাদী হয়ে নবী হোসেনকে প্রধান আসামি করে ১৫  থেকে ১৬ জনের নাম উল্লেখপূর্বক একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

এ ব্যাপারে নিহত জাকির হোসেনের বড় ভাই মনির হোসেন দৈনিক অধিকারকে জানান, বৈদ্যেরবাজার ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি নবী হোসেন ও আইয়ুব আলী মেম্বারের ছেলে সিরাজসহ তাদের সহযোগীরা জাকির হোসেনকে খুন করেছেন। এ সময় তিনি কান্নাজড়িত কণ্ঠে তার ভাই জাকির হোসেনকে হত্যার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেফতার করে সুষ্ঠু বিচারের দাবি জানান।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে সোনারগাঁ থানার ওসি মনিরুজ্জামান দৈনিক অধিকারকে জানান, ‘স্থানীয় আধিপত্য বিস্তার, একটি কোম্পানির ব্যবসা নিয়ন্ত্রণ, নদীতে ঝোপ দিয়ে মাছ শিকার এবং অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের টাকা ভাগাভাগি নিয়েই ওই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় নিহতের ভাই মনির হোসেন বাদী হয়ে সোমবার একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। এছাড়া আটককৃত আবু হানিফকে এই মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে আদালতে প্রেরণ করা হবে।’

ওডি/আইএইচএন

আপনার চারপাশে ঘটে যাওয়া নানা খবর, খবরের পিছনের খবর সরাসরি দৈনিক অধিকারকে জানাতে ই-মেইল করুন- [email protected] আপনার পাঠানো তথ্যের বস্তুনিষ্ঠতা যাচাই করে আমরা তা প্রকাশ করব।
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন সজীব 

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড