• শনিবার, ০৬ জুন ২০২০, ২৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭  |   ৩২ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

একনজরে বিপিএলের আগের ছয় ফাইনাল

  ক্রীড়া ডেস্ক

১৭ জানুয়ারি ২০২০, ১০:৪৩
কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স
বিপিএলের সবশেষ আসরের চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স (ছবি : সংগৃহীত)

বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের (বিপিএল) সপ্তম আসরের পর্দা নামছে আজ। জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে আয়োজিত এবারের বিশেষ আসরের ফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে খুলনা টাইগার্স-রাজশাহী রয়্যালস। খুলনা-রাজশাহীর কেউই ইতঃপূর্বে শিরোপার স্বাদ পায়নি। আগের ছয় আসরে তিনবার চ্যাম্পিয়ন হয় ঢাকা। কুমিল্লার ঘরে শিরোপা গেছে দুবার। একবার জিতেছে রংপুর। আজ যেই দল জিতবে সে ই হবে বিপিএলের নতুন চ্যাম্পিয়ন। 

কেমন ছিল আগের ৬ ফাইনাল? এক নজরে দেখে নেওয়া যাক 

২০১২ (প্রথম আসর)

২০১২ সালের ১০ ফেব্রুয়ারি মাঠে গড়ায় বিপিএলের প্রথম আসর। সেবার অংশ নেয় ছয়টি দল। লিগ পর্বে যোগ্যতার প্রমাণ দিয়ে দুরন্ত রাজশাহী, খুলনা রয়্যাল বেঙ্গলস, ঢাকা গ্লাডিয়েটরস ও বরিশাল বার্নার্স সেমি-ফাইনালে জায়গা করে নেয়। ফাইনালে বরিশাল বার্নার্সকে ৮ উইকেটে হারিয়ে বিপিএলের প্রথম শিরোপা ঘরে তোলে ঢাকা গ্লাডিয়েটরস। প্রথম আসরে গ্লাডিয়েটরসের নেতৃত্বে ছিলেন মাশরাফি বিন মর্তুজা। ফাইনালের সেরা খেলোয়াড় নির্বাচিত হন গ্লাডিয়েটরসের ইমরান নাজির ও টুর্নামেন্ট সেরা হন খুলনা রয়েল বেঙ্গলসের হয়ে খেলা সাকিব আল হাসান।

সংক্ষিপ্ত স্কোর : 
বরিশাল বার্নার্স : ১৪০/৭ ( ২০ ওভার) (আহমেদ শেহজাদ ২৮, ব্রাড হজ ৭০*; আফ্রিদি ৩/২৩, রানা নাভেদ ২/২৪)
ঢাকা গ্লাডিয়েটরস: ১৪৪/২ (১৫.৪ ওভার) (ইমরান নাজির ৭৫, এনামুল বিজয় ৪৯*; শুভ ১/২৪)
ফল: ঢাকা ৮ উইকেটে জয়ী
ম্যাচ সেরা: ইমরান নাজির (ঢাকা)।
 
২০১২-১৩ (দ্বিতীয় আসর)

বিপিএলের দ্বিতীয় আসর মাঠে গড়ায় ২০১৩ সালের ১৮ জানুয়ারি। দ্বিতীয় আসরে দলসংখ্যা বেড়ে হয় ৭। লিগ পর্ব থেকে প্লে-অফে জায়গা করে নেয় ঢাকা গ্লাডিয়েটরস, সিলেট রয়্যালস, চিটাগং কিংস ও দুরন্ত রাজশাহী। রেস টু ফাইনালে মুখোমুখি হয় ঢাকা ও সিলেট। এ আসরেও শিরোপা জিতে টানা দ্বিতীয়বারের মতো শিরোপা ঘরে তোলে ঢাকা গ্লাডিয়েটরস। টানা দ্বিতীয়বার অধিনায়ক হিসেবে শিরোপা জয়ের স্বাদ পান মাশরাফি। এছাড়া টানা দ্বিতীয় আসরেও টুর্নামেন্ট সেরা নির্বাচিত হন সাকিব আল হাসান। তবে পার্থক্য শুধু প্রথম আসরে খুলনাতে খেললেও দ্বিতীয় আসরে সাকিব খেলেন চ্যাম্পিয়নদের পক্ষে। দ্বিতীয় আসরের ফাইনালে গ্লাডিয়েটরস মুখোমুখি হয় চিটাগাং কিংসের। কিংসকে ৫২ রানে হারায় ঢাকা। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর : 
ঢাকা  গ্লাডিয়েটরস : ১৭২/৯ (২০ ওভার) (আশরাফুল ২৪, এনামুল বিজয় ৫৮, সাকিব ৪১; রুবেল ৪/৪৪)
চিটাগং কিংস: ১২৯ (১৬.৫ ওভার) (জেসন রয় ৪০, মাহমুদুল্লাহ ৪৪; মোশাররফ রুবেল ৩/২৬)
ফল: ঢাকা ৪৩ রানে জয়ী
ম্যাচ সেরা: মোশাররফ রুবেল (ঢাকা)।

২০১৫-১৬ (তৃতীয় আসর)

বিপিএলের তৃতীয় আসর মাঠে গড়ায় ২০১৫ সালের ২২ নভেম্বর। এই আসরে ছয়টি দল অংশ নেয়। গ্রুপপর্ব থেকে প্লে-অফ নিশ্চিত করে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স, বরিশাল বুলস, রংপুর রাইডার্স ও ঢাকা ডায়নামাইটস। প্রথম কোয়ালিফায়ারে রংপুর রাইডার্সকে ৭২ রানের বড় ব্যবধানে হারিয়ে প্রথমবারের মতো অংশ নিয়েই ফাইনালে নাম লেখায় কুমিল্লা। এলিমিনেটর ম্যাচে ঢাকাকে ১৮ রানে হারিয়ে দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে জায়গা করে নেয় বরিশাল। সেখানে রংপুরকে ৫ উইকেটের ব্যবধানে হারিয়ে ফাইনালে ওঠে তারা। ১৫ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত ফাইনালে বরিশাল বুলস প্রথমে ব্যাট করতে নেমে ৪ উইকেট হারিয়ে ১৫৬ রান তোলে। জবাবে ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে জয় নিশ্চিত করে কুমিল্লা। জিতে নেয় শিরোপা। ফাইনালে ম্যাচসেরা হন অলক কাপালি। আর সিরিজ সেরা হন আসহার জাইদি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর : 
বরিশাল বুলস: ১৫৬/৪ (২০ ওভার) (নাফীস ৪৪, মাহমুদউল্লাহ ৪৮, প্রসন্ন ৩৩; আসহার জাইদি ১/২৬)
কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স: ১৫৭/৭ (২০ ওভার) (ইমরুল ৫৩, কাপালি ৩৯*; মাহমুদউল্লাহ ২/২২)
ফল: কুমিল্লা ৩ উইকেটে জয়ী
ম্যাচ সেরা: অলক কাপালি (কুমিল্লা)।

২০১৬-১৭ (চতুর্থ আসর)

২০১৬ সালের ৮ ডিসেম্বর মাঠে গড়ায় বিপিএলের চতুর্থ আসর। এক আসর পর আবারও শিরোপা নিজেদের ঘরে নিয়ে আসে ঢাকা ডায়নামাইটস। এই প্রথমবারের মতো মাশরাফি ছাড়া অন্যকোনো অধিনায়ক বিপিএলের শিরোপা জয়ের স্বাদ পায়। বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিবের নেতৃত্বে শিরোপা জিতে ডায়নামাইটসরা। ফাইনালে রাজশাহী কিংসের বিপক্ষে ৫৬ রানের জয় পায় সাকিবরা।  ফাইনালের ম্যাচসেরা নির্বাচিত হন কুমার সাঙ্গাকারা। আর টুর্নামেন্ট সেরা হন মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর : 
ঢাকা ডায়নামাইটস: ১৫৯/৯ (২০ ওভার) (লুইস ৪৫, সাঙ্গাকারা ৩৬; রেজা ৩/২৮)
রাজশাহী কিংস: ১০৩ (১৭.৪ ওভার) (মুমিনুল ২৭, সাব্বির ২৬; রাহী ২/১২, সানজামুল ২/১৭)
ফল: ঢাকা ৫৬ রানে জয়ী
ম্যাচ সেরা: কুমার সাঙ্গাকারা (ঢাকা)।

২০১৭-১৮ (পঞ্চম আসর) 

পঞ্চম আসরেও ফাইনালে উঠে ঢাকা ডায়নামাইটস। তবে এবার ক্রিস গেইলের তাণ্ডবে শিরোপা বঞ্চিত হয় তারা। প্রথমবারের মত বিপিএলের শিরোপা জিতে নেয় রংপুর রাইডার্স। ফাইনালে সাকিবকে হারিয়ে আবারও শিরোপা পুনরুদ্ধার করেন মাশরাফি। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর : 
রংপুর রাইডার্স: ২০৬/১ (২০ ওভার) (গেইল ১৪৬*, ম্যাককালাম ৫১; সাকিব ১/২৬)
ঢাকা ডায়নামাইটস: ১৪৯/৯ (২০ ওভার) (সাকিব ২৬, জহুরুল ইসলাম ৫০; নাজমুর অপু ২/৮, গাজী ২/৩২)
ফল: রংপুর ৫৭ রানে জয়ী
ম্যাচ সেরা: ক্রিস গেইল (রংপুর)।

২০১৮-১৯ (ষষ্ঠ আসর) 

জাতীয় নির্বাচনের কারণে ২০১৮ সালের বিপিএল অনুষ্ঠিত হয় গেল বছরের জানুয়ারিতে। দুই আসর পর এ আসরে আবারও শিরোপা জিতে নেয় কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। ফাইনালে ঢাকা ডায়নামাইটসের বিপক্ষে আগে ব্যাট করে তামিম ইকবালের বিধ্বংসী ১৪১ রানের ওপর ভর করে ১৯৯ রান সংগ্রহ করে কুমিল্লা। জবাবে ১৮২ রানে থামে ঢাকা ডায়নামাইটসের ইনিংস।

সংক্ষিপ্ত স্কোর : 
কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স: ১৯৯/৩ (২০ ওভার) (তামিম ১৪১*, বিজয় ২৪; সাকিব ১/৪৫)
ঢাকা ডায়নামাইটস: ১৮২/৯ (২০ ওভার) (থারাঙ্গা ৪৮, রনি তালুকদার ৬৬; ওয়াহাব রিয়াজ ৩/২৮)
ফল: কুমিল্লা ১৭ রানে জয়ী
ম্যাচ সেরা: তামিম (কুমিল্লা)। 

ওডি/এএপি 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড