• বুধবার, ০৫ আগস্ট ২০২০, ২১ শ্রাবণ ১৪২৭  |   ৩১ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

বিপিএলের ঢাকা পর্বের খুঁটিনাটি

  ক্রীড়া ডেস্ক

১৫ ডিসেম্বর ২০১৯, ১৫:৪৫
বিপিএল
বাঁ থেকে মাহমুদউল্লাহ, মুমিনুল, মোসাদ্দেক, রাসেল, মুশফিক ও সানাকা (ছবি: সংগৃহীত)

শেষ হয়েছে বঙ্গবন্ধু বিপিএলের ঢাকা পর্ব। টুর্নামেন্টের এ পর্বে ৪ দিনে ৮টি ম্যাচ অনুষ্ঠিত হয়েছে। দুদিন বিরতি দিয়ে ১৭ ডিসেম্বর থেকে শুরু হবে চট্টগ্রাম পর্ব। ঢাকা পর্ব শেষে বিপিএলের খুঁটিনাটি জেনে নেওয়া যাক-

ঢাকা পর্বে টুর্নামেন্টের সবচেয়ে সফল দল রাজশাহী রয়্যালস। তারা দুই ম্যাচ খেলে দুটিতেই বড় জয় পেয়েছে। এরপরেই রয়েছে ঢাকা প্লাটুন ও চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স। এ দুই দলই তিন ম্যাচে সমান দুটি জয় পেয়েছে। খুলনা টাইগার্স একটি ম্যাচ খেলে একটিতেই জয় ছিনিয়ে নিয়েছে। অন্যদিকে দুই ম্যাচে এক জয় কুমিল্লা ওয়ারিয়র্সের। সিলেট থান্ডার তিনটি ও রংপুর রেঞ্জার্স দুটি ম্যাচ খেললেও এখনো জয়ের দেখা পায়নি।

ঢাকা পর্বে সর্বোচ্চ দুটি স্কোরই ঢাকা প্লাটুনের। সিলেট থান্ডারের বিপক্ষে নিজেদের সর্বশেষ ম্যাচে আগে ব্যাট করে ঢাকা সংগ্রহ করে ৪ উইকেটে ১৮২ রান। এর আগে, নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে কুমিল্লা ওয়ারিয়র্সের বিপক্ষে ঢাকা করেছিল ৭ উইকেটে ১৮০ রান। বিপিএলের দ্বিতীয় ম্যাচে রংপুরের বিপক্ষে কুমিল্লা ওয়ারিয়র্স সংগ্রহ করেছিল ৭ উইকেটে ১৭৩ রান, যা এখন পর্যন্ত তৃতীয় সর্বোচ্চ স্কোর। চতুর্থ সর্বোচ্চ স্কোরটি চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের। চট্টগ্রামের দলটি সিলেট থান্ডারের বিপক্ষে করেছিল ৫ উইকেটে ১৬৩ রান।

এখন পর্যন্ত রানের ব্যবধানে সবচেয়ে বড় জয়টি পেয়েছে কুমিল্লা। তারা সিলেটকে হারিয়েছে ১০৫ রানের ব্যবধানে। আর উইকেটের ব্যবধানে সবচেয়ে বড় জয়টি পেয়েছে রাজশাহী রয়্যালস। ঢাকা প্লাটুনের দেওয়া ১৩৫ রানের টার্গেট তারা টপকে গিয়েছে ৯ উইকেট হাতে রেখেই। অন্যদিকে সবচেয়ে বেশি বল হাতে রেখেও জয় পেয়েছে রাজশাহী। সিলেটের দেওয়া ৯২ রানের টার্গেট তারা ৫৫ বল হাতে রেখেই টপকে গিয়েছে।

এখন পর্যন্ত এক ইনিংসে সবচেয়ে বেশি অতিরিক্ত রান দিয়েছে কুমিল্লা। ঢাকার বিপক্ষে কুমিল্লার বোলাররা ১৬টি অতিরিক্ত রান দিয়েছে। এছাড়া ঢাকা পর্বে টুর্নামেন্টের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের দুই ব্যাটসম্যান ইমরুল কায়েস ও চ্যাডউইক ওয়ালটন। এ দুইজনই তিন ম্যাচ খেলে সমান ১১৭ রান করেছে। এছাড়া মোহাম্মদ মিথুন করেছেন ১১২ রান আর তামিম ইকবালের সংগ্রহ ১১০ রান। এখন পর্যন্ত এবারের বিপিএলে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ ইনিংসটি খেলেছেন মোহাম্মদ মিথুন। টুর্নামেন্টের উদ্বোধনী ম্যাচে অপরাজিত ৮৪ রানের দুর্দান্ত একটি ইনিংস খেলেন তিনি। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ইনিংসটি আসে মোহাম্মদ নাঈমের ব্যাট থেকে। এ ব্যাটসম্যান খেলেছেন ৭৮ রানের ইনিংস। অন্যদিকে দাসুন সানাকা খেলেছেন অপরাজিত ৭৫ রানের ইনিংস আর কুমিল্লার বিপক্ষে তামিমের ব্যাট থেকে এসেছিল ৭৪ রান। এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ ৯টি ছক্কা হাঁকিয়েছে সানাকা। এছাড়া ইমরুল কায়েসের ব্যাট থেকে এসেছে ৮টি ছক্কা। অন্যদিকে আভিস্কা ফার্নান্দো ও চ্যাডউইক ওয়ালটন মেরেছেন সমান ছয়টি ছক্কা।

এখন পর্যন্ত তিন ম্যাচে পাঁচ উইকেট শিকার করে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারি থিসারা পেরেরা। এছাড়া চারটি করে উইকেট শিকার করেছেন অলক কাপালী, সৌম্য সরকার ও গ্রেগরি। সেরা বোলিং ফিগার পেরেরার। কুমিল্লা ওয়ারিয়র্সের বিপক্ষে ৪ ওভারে ৩০ রানের বিনিময় ৫ উইকেট শিকার করেন তিনি। রংপুরের বিপক্ষে ৩ ওভার বোলিং করে ১৪ রানের বিনিময়ে ৩ উইকেট শিকার করেছেন আল আমিন। অন্যদিকে অলক কাপালী সিলেটের বিপক্ষে ৩ ওভারে ১৭ রান খরচায় নিয়েছেন তিন উইকেট।

এছাড়া ঢাকা পর্বে সর্বোচ্চ চারটি ডিসমিসাল করেছেন এনামুল হক বিজয়। আর লিটন দাস ও মাহিদুল অঙ্কনের ডিসমিসাল সংখ্যা সমান তিন।

ওডি/এমএমএ

jachai
nite
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
jachai

সম্পাদক: মো: তাজবীর হোসাইন  

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: 02-9110584, +8801907484800

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড