• মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯, ৮ শ্রাবণ ১৪২৬  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন

চ্যাম্পিয়ন হতে পারলেন না নোবেল

  বিনোদন ডেস্ক

০১ জুলাই ২০১৯, ২২:৫৭
নোবেল
শেষ পর্যন্ত চ্যাম্পিয়ন হতে পারেননি বাংলাদেশি গায়ক নোবেল। (ছবি : সংগৃহীত)

শেষ পর্যন্ত পারলেন না তিনি। সারা আয়োজন জুড়ে সবার নজরে থেকেও শেষ পর্যন্ত আর হয়ে উঠা হলো না চ্যাম্পিয়ন। মুকুট মাথায় তুলতে দেখলেন অন্য আরেকজনকে। ভারতের জনপ্রিয় টিভি রিয়েলিটি শো সা রে গা মা পা মাতানো বাংলাদেশি শিল্পী মাঈনুল আহসান নোবেল এবারের আসরে অর্জন করেছেন তৃতীয় স্থান।

দুই বাংলাতেই জনপ্রিয় এই সংগীত প্রতিযোগিতাটিতে চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন অঙ্কিতা। এই ফলাফল রিয়েলিটি শোটির বিচারকদের দেয়া ফলের ভিত্তিতে করা। তবে দর্শকদের ভোটে ঠিকই সেরা স্থানটি অর্জন করেছেন বাংলাদেশী গায়ক নোবেল। 'মোস্ট ভিউয়ার চয়েস' ক্যাটাগরিতে তিনি সেরা হয়েছেন দর্শকদের ভোটে।

গত শনিবার বিশ্ব বাংলা কনভেনশন সেন্টার কলকাতাতে এই প্রতিযোগিতাটির গ্র্যান্ড ফিনালে অনুষ্ঠিত হয়েছে বলে জানা গেছে। এবারের আসরের শেষ পর্বটি ভারতীয় টিভি চ্যানেল জি বাংলায় দেখা যাবে আগামী ২৮ জুলাই।

মাঈনুল আহসান নোবেল এই প্রতিযোগিতার মাধ্যমে পশ্চিমবঙ্গ এবং বাংলাদেশে বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছেন দিনে দিনে। তার গায়কীতে মুগ্ধ হয়ে বিচারকরা তাকে উপাধি দিয়েছিলেন 'বিস্ময় বালক'। এই প্রতিযোগিতার অনন্য আকর্ষণ গোল্ডেন গিটার সবচেয়ে বেশি অর্জন করেছেন বাংলাদেশের গোপালগঞ্জের সন্তান নোবেল। তবে শেষ অবধি দর্শকদের মনের আশা পূরণ করতে পারেননি তিনি। বিচারক এবং দর্শকদের বিচারে সব সময় এগিয়ে থাকলেও প্রথম স্থান আর অর্জন করা হলো না তার। তৃতীয় স্থান নিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হচ্ছে থাকে।

গত শনিবারই এই আয়োজনের গ্র্যান্ড ফিনালে শেষে বিজয়ী প্রতিযোগীদের হাতে তুলে দেওয়া হয় পুরস্কার। আর এর খানিক পরেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে একটি ছবি ছড়িয়ে পড়ে। সেখানে দেখা যায়, প্রথম পুরস্কার হিসাবে গাড়ির চাবি তুলে দেওয়া হচ্ছে প্রতিযোগী অঙ্কিতার হাতে। আর তারপাশেই প্রথম রানার আপ হিসেবে গৌরব সরকার এবং স্নিগ্ধজিৎ দাঁড়িয়ে আছে। তাদের পেছনেই দাঁড়িয়ে আছে প্রীতম এবং নোবেল। ভারতীয় বিভিন্ন গণমাধ্যমের বরাতে জানা গেছে, প্রথম রানার আপের মতো দ্বিতীয় রানার আপও হয়েছেন দুজন। প্রীতম এবং মাঈনুল আহসান নোবেল যৌথভাবে অর্জন করেছেন।

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে ভারতীয় টিভি চ্যানেল জি বাংলাতে সা রে গা মা পা -২০১৮-১৯ এর যাত্রা শুরু হয়। বাংলাদেশ থেকে এই প্রতিযোগিতায় অংশ নেন ৭ জন প্রতিযোগী। তবে একে একে সবাই আসর থেকে বাদ পড়লেও একমাত্র নোবেলই টিকে ছিলেন শেষ পর্যন্ত।

জনপ্রিয় এই রিয়েলিটি শোতে বিচারক হিসেবে ছিলেন শ্রীকান্ত আচার্য, শান্তনু মৈত্র এবং মোনালী ঠাকুর।

ওডি/এসএম 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: মোঃ তাজবীর হুসাইন

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

ফোন: ০২-৯১১০৫৮৪

ই-মেইল: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৮-২০১৯

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড