• শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০  |   ২৯ °সে
  • বেটা ভার্সন
sonargao

সব কাজেই গল্পকে সবার আগে প্রাধান্য দেই: অ্যান্ডি আদনান

  সাঈদ মাহাদী সেকেন্দার

১৪ অক্টোবর ২০২৩, ১৮:৩৫
অ্যান্ডি আদনান

বাংলাদেশের বিজ্ঞাপন নির্মাতাদের মধ্যে ব্যস্ত সময় পার করছেন তরুণ নির্মাতা অ্যান্ডি আদনান। তার কাজের ব্যস্ততা, বিজ্ঞাপন নির্মাণ সংশ্লিষ্ট বিষয় এবং ভবিষ্যত পরিকল্পনা নিয়ে কথা বলেন দৈনিক অধিকার এর সাথে। সাক্ষাৎকার নিয়েছেন সাঈদ মাহাদী সেকেন্দার।

অধিকার : বিজ্ঞাপন নির্মাণে যুক্ত হওয়ার গল্প যদি বলতেন-

অ্যান্ডি আদনান: ২০১৪ সালে দেশের বাইরে যাওয়ার আগে আমি তিন বছর নাটকের সহকারী পরিচালক হিসেবে কাজ করেছি। দেশের বাইরে থেকে পড়াশোনা শেষ করে ২০১৬ তে দেশে এসে নাটক নির্মাণ শুরু করি। নাটক, শর্ট ফিল্ম, মিউজিক ভিডিয়ো, মেগা সিরিয়ালও বানিয়েছি। কোভিডের পরে আস্তে আস্তে বিজ্ঞাপনের দিকে আগ্রহ জন্মালো। এখন নিয়মিতই বানাচ্ছি বিজ্ঞাপন।

অধিকার: বিজ্ঞাপনের প্রতিযোগিতামূলক বাজার কেমন বলে মনে করেন?

অ্যান্ডি আদনান: সকল সেক্টরেই প্রতিযোগিতা করে টিকে থাকতে হয়, যখন নাটক বানিয়েছি তখনও প্রতিযোগিতা ছিল। প্রতিযোগিতা নিয়ে না ভেবে আমি শুধু আমার কাজ নিয়েই ভাবতে চাই।

অধিকার: বর্তমানে বিজ্ঞাপনের বাজার সম্পর্কে যদি বলতেন -

অ্যান্ডি আদনান: গত কিছু বছর ধরেই তো পৃথিবী অস্থির। কোভিড এর মতো এত বড় ধাক্কার পরে আবার যুদ্ধ-বিগ্রহ লেগেই আছে। এসবের প্রভাব অবশ্যই পড়েছে বিজ্ঞাপন বাজারেও। অনেক ক্ষেত্রেই বাজেট কমে গেছে আগের থেকে। তার সাথে মানও। কিন্তু পরিবর্তনশীল পৃথিবীতে এভাবে এগিয়ে যেতে হবে, কিছু করার নেই (হাসি)।

অধিকার: একটু অন্য প্রসঙ্গ, আপনার পড়াশোনা ব্যবসায় প্রশাসনে। বিদেশের ডিগ্রিও আছে। শুনেছি, পিএইডি'র জন্য বিদেশের একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আবেদনও করেছেন- বিজ্ঞাপন নির্মাণের সাথে সম্পর্ক কিভাবে করেন? অ্যান্ডি আদনান: গোপন নেই দেখি কিছু (আবার হাসি)। আমার শিক্ষাজীবন নিয়ে খুব কাছের মানুষ জনই জানে। যাহোক, বিজ্ঞাপন বলেন, নাটক বলেন কিংবা সিনেমা, প্রত্যেকটি প্রোডাকশনের সাথেই কিন্তু কমার্স (ব্যবসা) বিষয়টি জড়িত। তাই আমার কাছে মনে হয় এই লেখাপড়া আমার কাজে একটি বাড়তি মাত্রা যোগ করেছে।

অধিকার: বিজ্ঞাপন নির্মাণে গল্প কতটা গুরুত্ব পেয়ে থাকে?

অ্যান্ডি আদনান: অবশ্যই গল্পই বিজ্ঞাপনের সব। প্রপার গল্প পণ্যটিকে কনজুমারের কাছে পৌঁছে দেয়। আমার কাজগুলো খেয়াল করে দেখবেন, সব কাজেই গল্পকে সবার আগে প্রাধান্য দেই।

অধিকার: বর্তমানে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের প্রভাব বিজ্ঞাপণ নির্মাণের বাজারে বিরুপ প্রভাব ফেলছে বলে মনে করেন?

অ্যান্ডি আদনান: আমি তা মনে করি না। আগে বিজ্ঞাপন হতো টিভিতে রেডিওতে কিংবা হাতে এঁকে। উন্নত সভ্যতায় সবকিছু পরিবর্তন হবেই। বিজ্ঞাপন এখন সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম প্রচারিত হচ্ছে। সবার হাতে এখন মুঠোফোন আছে, ইন্টারনেট আছে তাই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমেই বিজ্ঞাপন এখন বেশি পৌঁছে যাচ্ছে মানুষের কাছে।

অধিকার: আপনার ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিয়ে যদি বলতেন-

অ্যান্ডি আদনান: ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা অবশ্যই চলচ্চিত্র নির্মাণ। চলচ্চিত্রের বাজারে সুদিন ফিরে আসছে। স্ক্রিপ্ট লিখছি ইনশাআল্লাহ সামনের বছরে চলচ্চিত্র নির্মাণ কাজ শুরু করবো।

অধিকার: শেষ করবো! ব্যক্তি জীবনে আপনি বেজায় ভবঘুরে, কানাঘুষা আছে। শুধু দেশ নয়, বিদেশেও হরহামেশাই বেড়াচ্ছেন। অনেক অনেক কথাই বলে-

অ্যান্ডি আদনান: জীবন নিয়ে আমার নিজস্ব একটা দর্শন আছে। আমি এনজয় (উপভোগ) করতে ভালোবাসি। আমি আনন্দে থাকতে ভালোবাসি। কিছু কথাতো নিজেরই থাকে, আজও না হয় থাক! এই ভবঘুরে জীবন আমাকে বাঁচিয়ে রাখে বলতে পারেন।

অধিকার: আপনার মূল্যবান সময় দেওয়ার জন্য দৈনিক অধিকারের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ।

অ্যান্ডি আদনান: আপনাকে এবং দৈনিক অধিকার পরিবারকে আমার পক্ষ থেকে ধন্যবাদ।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

নির্বাহী সম্পাদক: গোলাম যাকারিয়া

 

সম্পাদকীয় কার্যালয় 

১৪৭/ডি, গ্রীন রোড, ঢাকা-১২১৫।

যোগাযোগ: 02-48118243, +8801907484702 

ই-মেইল: [email protected]

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, অডিও, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি।

Developed by : অধিকার মিডিয়া লিমিটেড